ঢাকা ০৯:১৭ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ১৮ মে ২০২৪, ৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
ব্রেকিং নিউজ:
গাংনীতে মোটরসাইকেলের মুখোমুখি সংঘর্ষে আহত-৪ মামা বাড়ি’তে এস’এস’সি পরীক্ষায় পাশের মিষ্টি দিয়ে বাড়ি ফেরা হলো না আর দৈনিক ক্রাইম তালাশে নিয়োগ পেলেন আহান্নুর দৈনিক ক্রাইম তালাশে নিয়োগ পেলেন সান মেহেরপুরে’র গোভিপুর গ্রামে স্বামীর হাসুয়ার কোপে স্ত্রী নিহত এমপিদে’র সরকারি বরাদ্দ ফেসবুকে প্রকাশ করেই যাবো মেহেরপুর উপজেলা নির্বাচনে আনারুল ইসলাম ও আমাম হোসেন মিলু নির্বাচিত মেহের’পুরে নিয়ম বহির্ভূত’ভাবে স্কুলের গাছ বিক্রি মেহেরপুর উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে কেন্দ্রে কেন্দ্রে সরঞ্জাম প্রেরণ গাংনী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে শ্লীলতাহানির অভিযোগে

প্রকাশে বীর মুক্তিযোদ্ধার ঘরবাড়ি দখল লুটপাট ও হত্যার উদ্দেশ্য হামলার অভিযোগে মামলা

নিজস্ব প্রতিবেদক :
  • আপডেট সময় : ০৫:১৩:২৮ অপরাহ্ন, বুধবার, ৩১ মে ২০২৩ ১৭৭ বার পড়া হয়েছে

মেহেরপুর জেলার পৌর শহরের কাথুলি সড়কের ক্যাশব পাড়ার বীর মুক্তিযোদ্ধা মৃত গোলাম রহমান বিশ্বাসের একমাত্র সন্তান মিজানুর রহমান মাসুদের বাড়িতে ১৫/২০ জন সশস্ত্র হামলা চালানো ও মুক্তিযোদ্ধার সন্তানকে ভিটেবাড়ি থেকে উচ্ছেদ করে তার জায়গা দখল,ভাংচুর ও লুটপাঠের অভিযোগ উঠেছে । ভুক্তভোগী ঐ মুক্তিযোদ্ধার সন্তানের নাম মো মিজানুর রহমান মাসুদ। তিনি মেহেরপুর পৌর শহরের ৫ নং ওয়ার্ড কাথুলি সড়কের ক্যাশব পাড়ার বীর মুক্তিযোদ্ধা মোঃ মৃত গোলাম রহমান বিশ্বাসের একমাত্র সন্তান ।শুক্রবার (২৭ মে) দুফুর তিনটার দিকে এই ঘটনা ঘটেছে।

ভুক্তভোগী মাসুদ জানায় আমার আব্বা আজ ১৮ মাস এই পৃথিবী থেকে বিদায় নিয়েছে, আব্বা মারা যাওয়ার পর থেকে ই আমার চাচারা আমার সাথে এরকম শুরু করেছে।আমার বাবা বীর মুক্তিযোদ্ধা, দেশের জন্য সর্বচ্চ দিয়েছেন।আর আজ তার ঘরে,সে যেখানে ঘুমাতে সেই জায়গাতেও ভাংচুর হামলা চালিয়েছে ! আমাদের নিরপত্তা কোথাই ? এজাহার থেকে জানা যায়,আসামীরা ১৫/২০ জন সশস্ত্র হামলা চালায় বাড়িতে।সময় আসামীরা বড় হেমার মেশিন, দেশীয় অস্ত্রসস্ত্র নিয়ে বীর মুক্তিযোদ্ধা গোলাম রহমান বিশ্বাসের বাড়িতে ঢুকে ভুক্তভোগী কে হত্যার উদ্দেশ্যই এই হামলা চালায় বলে সরাসরি অভিযোগ মিজানুর রহমান মাসুদের।পাঁচ জনের নাম উল্লেখ করে অজ্ঞাত আরো ১০/১৫ করে আসামি করে মেহেরপুর সদর থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে।মামলায় উল্লেখ নগত ১০,০০০০০ লক্ষ টাকা,স্বর্নের গহনা যাহার মুল্য ২৫ লক্ষ টাকা সহ মোট ৮৫ লক্ষ টাকা ক্ষতি সাধন করেছে বলেও উল্লেখ করা হয়েছে।
মেহেরপুর থানার মামলা নাম্বার ৩৪-

হামলার সময় ভুক্তভোগী মাসুদ ৯৯৯ এ ফোন দিয়ে সাহায্য চাইলে মেহেরপুর সদর থানা থেকে একটি টিম ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন।
এই বিষয়ে মামলার তদন্তকারি অফিসার মমিনুর ইসলাম জানান,মামলা রেকর্ড হয়েছে,তদন্দ করে দোষীদের বিরুদ্ধে আইনানুযায়ী ব্যাবস্থা নেয়া হবে।

মুক্তিযোদ্ধার বাড়িতে এই ন্যাক্কারজনক হামলার ঘটনায় নিন্দা জানিয়ে মেহেরপুরের মুক্তিযোদ্ধার কমান্ডার মালেক বলেন-মুক্তিযোদ্ধার ঘরবাড়ি যারা ভেঙেছে তাদের কোন ছাড় দেয়া হবে না।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

আপলোডকারীর তথ্য
ট্যাগস :

প্রকাশে বীর মুক্তিযোদ্ধার ঘরবাড়ি দখল লুটপাট ও হত্যার উদ্দেশ্য হামলার অভিযোগে মামলা

আপডেট সময় : ০৫:১৩:২৮ অপরাহ্ন, বুধবার, ৩১ মে ২০২৩

মেহেরপুর জেলার পৌর শহরের কাথুলি সড়কের ক্যাশব পাড়ার বীর মুক্তিযোদ্ধা মৃত গোলাম রহমান বিশ্বাসের একমাত্র সন্তান মিজানুর রহমান মাসুদের বাড়িতে ১৫/২০ জন সশস্ত্র হামলা চালানো ও মুক্তিযোদ্ধার সন্তানকে ভিটেবাড়ি থেকে উচ্ছেদ করে তার জায়গা দখল,ভাংচুর ও লুটপাঠের অভিযোগ উঠেছে । ভুক্তভোগী ঐ মুক্তিযোদ্ধার সন্তানের নাম মো মিজানুর রহমান মাসুদ। তিনি মেহেরপুর পৌর শহরের ৫ নং ওয়ার্ড কাথুলি সড়কের ক্যাশব পাড়ার বীর মুক্তিযোদ্ধা মোঃ মৃত গোলাম রহমান বিশ্বাসের একমাত্র সন্তান ।শুক্রবার (২৭ মে) দুফুর তিনটার দিকে এই ঘটনা ঘটেছে।

ভুক্তভোগী মাসুদ জানায় আমার আব্বা আজ ১৮ মাস এই পৃথিবী থেকে বিদায় নিয়েছে, আব্বা মারা যাওয়ার পর থেকে ই আমার চাচারা আমার সাথে এরকম শুরু করেছে।আমার বাবা বীর মুক্তিযোদ্ধা, দেশের জন্য সর্বচ্চ দিয়েছেন।আর আজ তার ঘরে,সে যেখানে ঘুমাতে সেই জায়গাতেও ভাংচুর হামলা চালিয়েছে ! আমাদের নিরপত্তা কোথাই ? এজাহার থেকে জানা যায়,আসামীরা ১৫/২০ জন সশস্ত্র হামলা চালায় বাড়িতে।সময় আসামীরা বড় হেমার মেশিন, দেশীয় অস্ত্রসস্ত্র নিয়ে বীর মুক্তিযোদ্ধা গোলাম রহমান বিশ্বাসের বাড়িতে ঢুকে ভুক্তভোগী কে হত্যার উদ্দেশ্যই এই হামলা চালায় বলে সরাসরি অভিযোগ মিজানুর রহমান মাসুদের।পাঁচ জনের নাম উল্লেখ করে অজ্ঞাত আরো ১০/১৫ করে আসামি করে মেহেরপুর সদর থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে।মামলায় উল্লেখ নগত ১০,০০০০০ লক্ষ টাকা,স্বর্নের গহনা যাহার মুল্য ২৫ লক্ষ টাকা সহ মোট ৮৫ লক্ষ টাকা ক্ষতি সাধন করেছে বলেও উল্লেখ করা হয়েছে।
মেহেরপুর থানার মামলা নাম্বার ৩৪-

হামলার সময় ভুক্তভোগী মাসুদ ৯৯৯ এ ফোন দিয়ে সাহায্য চাইলে মেহেরপুর সদর থানা থেকে একটি টিম ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন।
এই বিষয়ে মামলার তদন্তকারি অফিসার মমিনুর ইসলাম জানান,মামলা রেকর্ড হয়েছে,তদন্দ করে দোষীদের বিরুদ্ধে আইনানুযায়ী ব্যাবস্থা নেয়া হবে।

মুক্তিযোদ্ধার বাড়িতে এই ন্যাক্কারজনক হামলার ঘটনায় নিন্দা জানিয়ে মেহেরপুরের মুক্তিযোদ্ধার কমান্ডার মালেক বলেন-মুক্তিযোদ্ধার ঘরবাড়ি যারা ভেঙেছে তাদের কোন ছাড় দেয়া হবে না।